স্ট্রোক থেকে বাঁচতে  এই ১০ টি খাবার খাবেন

স্ট্রোক থেকে বাঁচতে এই ১০ টি খাবার খাবেন

স্ট্রোকের রোগীর খাবার সম্পর্কে জানতে হলে আগে স্ট্রোক সম্পর্কে কিছু জানা দরকার । সারাবিশ্বে প্রতিবছর স্ট্রোকে ৫০ লাখ মানুষ মৃত্যুবরণ করে ।  শারীরিক প্রতিবন্ধিতার প্রধান কারণও স্ট্রোক । প্রতি ৬ জনে ১ জন স্ট্রোক করে ।স্ট্রোকের চিকিৎসা অনেক ব্যয়সাধ্য এবং নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে হাসপাতালে আনতে হয় । তাই স্ট্রোকের চিকিৎসা আসলেই কঠিন । আমাদের দেশে স্ট্রোক রোগীদের জন্য ভালভাবে রিহ্যাবিলিটেশন নেই বললে চলে । তাই স্ট্রোক মানে মৃত্যু , আর যারা বেঁচে থাকে তাদের জন্য  সীমাহীন দুর্ভোগ । স্ট্রোক সম্পর্কে  তেমন কিছু জানি না , বিশেষ করে স্ট্রোকের রোগীর খাবার , স্ট্রোক প্রতিরোধ করতে কখন  কি খাব , কি ধরনের এক্সারসাইজ করব ?  আমরা এইসব জানি না বলেই চলে । 

স্ট্রোকের রোগীর খাবার
স্ট্রোক থেকে বাঁচার উপায়

 

স্ট্রোকের রোগীর খাবার

স্ট্রোকে মৃত্যুহার অনেক বেশি হলেও স্টোক প্রতিরোধযোগ্য । স্ট্রোকের জন্য সঠিক খাবার, নিয়মিত ব্যায়াম এবং সঠিক জীবন যাত্রা মাধ্যমেই আমরা ৮০-৯০% স্ট্রোক প্রতিরোধ করতে পারি ।একবার স্ট্রোক করলে , পরবর্তীতে স্ট্রোকের ঝুঁকি আরো অনেক বেশি বেড়ে যায় । কিন্তু সঠিক জীবনযাত্রা এবং খাবার দাবারের চাইলেই স্ট্রোক প্রতিরোধ করা যায় । মূলত  কি কি খাবার খেলে স্ট্রোক থেকে বাঁচতে পারব, সেইগুলো নিয়ে এই ব্লগ ।  

১। স্ট্রোক প্রতিরোধের জন্য বাদামঃ

স্ট্রোক প্রতিরোধের জন্য বাদাম খুবই পুষ্টিকর খাবার। । গবেষনায় দেখা গেছে নিয়মিত ৩০ গ্রাম বাদাম খেলে স্ট্রোকের ঝুঁকি অর্ধেক কমে যায় । 

২। রসুনঃ

স্ট্রোকের ঝুঁকি কমাতে রসুন খুবই গুরুত্বপূর্ন খাবার । স্ট্রোক রোগীদের জন্যও রসুন গুরুত্বপূর্ন । গবেষনায় দেখা গেছে নিয়মিত রসুন খেলে স্ট্রোকের ঝুঁকি ৫০% কমে । প্রতিদিন ১ -২ কোয়া রসুন খাবেন । 

৩। সবুজ শাকসবজিঃ

হার্ভাড বিশ্ববিদ্যালয়ের  গবেষনায় দেখা গেছে সবুজ শাকসবজি খেলে ২০% স্ট্রোক ঝুঁকি কমে । বিশেষ করে পালংশাক স্ট্রোক ঝুঁকি কমাতে খুবই উপকারী । স্ট্রোক প্রতিরোধের জন্য এবং স্ট্রোকের রোগীর খাবার হিসেবে বাদাম খুবই গুরুত্বপূর্ন । 

৪। সিট্রেসঃ  

স্ট্রোক ঝুঁকি কমাতে টক জাতীয় ফল খুবই উপকারী খাবার । ।  ৭০ হাজার মহিলাদের নিয়ে একটা গবেষনা স্ট্রোক জার্নালে প্রকাশিত হয়েছিল – দেখা গেছে এরা ১৪ বছরের বেশি সময় ধরে পর্যাপ্ত সিট্রেস ফল খেয়েছিল এদের স্ট্রোক ঝুঁকি ১৯% কমছে , যারা  স্বাভাবিক  খেয়েছে তাদের থেকে । যেমন – লেবু, কমলা, মালটা সিট্রেস ফল । 

৫। টমেটোঃ

টমেটোতে প্রচুর পরিমানে লাইকোপেন  থাকে, যেটা রক্তনালীতে জমাট বাধা ব্লক সরাতে কাজ করে । নিউরোলজি জার্নালে প্রকাশিত এনালাইসিসে দেখা গেছে এতে প্রায় ৫৫% স্ট্রোক ঝুঁকি কমে । যারা আগে স্ট্রোকে করেছেন অর্থাৎ স্ট্রোক রোগীদের খাবার হিসেবেফ টমেটো গুরুত্বপূর্ন । 

৬। কফি এবং গ্রীন টিঃ

স্ট্রোক ঝুঁকি কমাতে কফি এবং অনেক ভাল কাজ করে । বিশেষ করে দৈনিক ২-৩ কাপ গ্রীন টি খেলে স্ট্রোক ১৪% স্ট্রোক ঝুঁকি কমে । 

৭০ হাজার মহিলাদের নিয়ে একটা গবেষনা স্ট্রোক জার্নালে প্রকাশিত হয়েছিল – দেখা গেছে এরা ১৪ বছরের বেশি সময় ধরে পর্যাপ্ত সিট্রেস ফল খেয়েছিল এদের স্ট্রোক ঝুঁকি ১৯% কমছে , যারা  স্বাভাবিক  খেয়েছে তাদের থেকে । যেমন – লেবু, কমলা, মালটা সিট্রেস ফল স্ট্রোকের রোগীর খাবার হিসেবে গুরুত্বপূর্ন।  

৭। কলাঃ

কলাতে প্রচুর পটাসিয়াম থাকে যেটা আমাদের উচ্চ রক্তচাপ কমাতে খুবই ভাল কাজ করে । একটা গবেষনায় দেখা গেছে নিয়মিত কলা খেলে সমস্যা ২৪% স্ট্রোক ঝুঁকি কমে । কলা খুবই সহজ লভ্য জিনিস , আমাদের নিয়মিত অন্তত একটা করে কলা খাওয়া উচিত ।  স্ট্রোকের রোগীর খাবার হিসেবে কলা বেশ উপকারী । পুনরায় স্ট্রোকের ঝুঁকি অনেক কমায় । 

৮। কুমড়োর বিচিঃ

কুমড়োর বিচিতে প্রচুর পরিমাণ ম্যাগনেসিয়াম থাকে , যেটা আমাদের স্ট্রোক ঝুঁকি কমাতে খবুই ভাল কাজ করে । স্ট্রোক জার্নালে প্রকাশিত একটা গবেষনায় দেখা গেছে কুমড়ো বিচি খেলে স্ট্রোক ঝুঁকি ২২% কমে । আপনি নিয়মিত ৮/১০ কুমড়োর বিচি খেতে পারেন । স্ট্রোক রোগীর খাবার এবং স্ট্রোক প্রতিরোধে  কুমড়োর বিচি অবশ্যই খাবেন । 

৯। সামুদ্রিক মাছঃ

সামুদ্রিক মাছে ( স্যালমন, টুনা )  ওমেগা ৩ ফ্যাটি এসিড থাকে। যেটা স্ট্রোক ঝুঁকি কমাতে খুবই ভাল কাজ করে । তবে শুধু সামুদ্রিক মাছ না , আমরা যেইসব মাছ খাই এইগুলোতে কিছু পরিমাণ ওমেগা ৩ ফ্যাটি এসিড আছে । 

১০ । মিষ্টি আলুঃ

মিষ্টি আলু খুবই পুষ্টিকর খাবার । এতে প্রচুর পরিমাণ ফাইবার  থাকে । মিষ্টি আলু আমাদের শরীরে রোগ প্রতিরোধে এন্টিঅক্সিডেন্ট হিসেবে কাজ করে ।  স্ট্রোক ঝুঁকি কমাতে নিয়মিত মিষ্টি আলু খাবেন ।

 

ধন্যবাদ

ডাঃ সাইফুল ইসলাম

কনসালটেন্ট ফিজিওথেরাপিস্ট 

প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান, ভিশন ফিজিওথেরাপি সেন্টার ,

উত্তরা , ঢাকা । ০১৯৩২৭৯৭২২৯ 

 

স্ট্রোক প্রতিরোধ উপায় গুলো দেখুন 

https://youtu.be/EN-_G_lhmzM

স্ট্রোক সম্পর্কিত বিভিন্ন ডিভাইস পেতে টেকনো হেলথের ওয়েব সাইট ভিজিট করুন 

www.technohealth.com.bd

Related Link:
For health and fitness product please visit Techno Health
For Baby product online Please Visit BABY BUY

This Post Has 2 Comments

  1. jashim uddin

    Very informative advice. Thank you doctor.

    1. drsaifulislam

      Thank you so much. Take care .

Leave a Reply